র‌্যাগিংয়ের প্রতিবাদ করায় রাবি শিক্ষার্থীকে রক্তাক্ত করলো ছাত্রলীগ

রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে (রাবি) ভর্তিচ্ছু শিক্ষার্থীকে র‌্যাগ দেওয়ার প্রতিবাদ করায় এক শিক্ষার্থীকে মারধরের অভিযোগ পাওয়া গেছে। রবিবার বিকেল ৫টার দিকে বিশ্ববিদ্যালয়ের শহীদ সোহরাওয়ার্দী হলের সামনে এ ঘটনা ঘটে।

ভুক্তভোগী শিক্ষার্থী বিশ্ববিদ্যালয়ের রাষ্ট্রবিজ্ঞানের সাদিক। অভিযুক্ত শিক্ষার্থী বাংলা বিভাগের মাসুম শিকদার। তাদের দুইজনের বাসা টাঙ্গাইল জেলায় এবং ২০১৪-১৫ বর্ষের শিক্ষার্থী।

জানা গেছে, আরিফ তালুকদার নামে এক ভর্তিচ্ছুকে নিয়ে ঘুরতে বের হয়েছিলেন সাদিক। শহীদ সোহরাওয়ার্দী হলের সামনে গেলে আরিফ আলাদা হয়ে পড়েন। এময় মাসুম শিকদারের সঙ্গে দেখা হলে টাঙ্গাইল জেলার পরিচয় পেয়ে বিভিন্নভাবে তাকে জেরা করেন। পরে হলের গেস্ট রুমে নিয়ে যায়। সেখানে উপস্থিত টাঙ্গাইলের এক ছাত্রলীগ নেতাকে চিনতে না পারায় তুই-তুকারি করা বিভিন্নভাবে হয়রানি করতে থাকেন। এর মধ্যে সাদিক ঘটনাস্থলে উপস্থিত হলে র‌্যাগ দেওয়া হচ্ছে কিনা জানতে চান। ভর্তিচ্ছুদের র‌্যাগ দেওয়া উচিত নয় বলতেই সাদিককে মারধর শুরু করে মাসুম। এতে সাদিকের চোখের কোণ ফেটে যায়। অল্পের জন্য বেঁচে যায় তার চোখ।

মারধরের বিষয়টি স্বীকার করে মাসুম শিকদার বলেন, সাদিক আমার খুব কাছের বন্ধু। আমরা প্রায় আড্ডা দেই, মজা করি। ওর সঙ্গে কিলঘুষি এমন নিত্যদিন চলে। তবে আজকে একটু বেশি হয়ে গেছে। ওর চোখের কোণে কেটে গেছে। পরে আমরা বিষয়টি মীমাংসা করে নিয়েছি।

এ বিষয়ে জানতে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর অধ্যাপক লুৎফর রহমান বলেন, ঘটনা শুনেছি। তদন্ত সাপেক্ষে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

Comments

comments