কাশ্মীরি নেতাদের গ্রেফতার অসাংবিধানিক: রাহুল গান্ধী

জম্মু ও কাশ্মীরের রাজনৈতিক নেতাদের গ্রেফতার অসাংবিধানিক ও অগণতান্ত্রিক বলে মন্তব্য করেছেন কংগ্রেস এমপি ও দলটির সাবেক সভাপতি রাহুল গান্ধী।

মঙ্গলবার এক টুইটার পোস্টে তিনি বলেন, কাশ্মীরের মূলধারার রাজনীতিবিদদের গোপন স্থানে আটকে রাখা হয়েছে। এটা অবশ্যই অদূরদর্শী ও বোকামি সিদ্ধান্ত। এটা সন্ত্রাসীদের দিয়ে নেতৃত্ব শূন্যতা পূরণে সহায়তা করবে।

রাহুল গান্ধী বলেন, আটক নেতাদের অবশ্যই ছেড়ে দিতে হবে। জম্মু ও কাশ্মীরকে বিভক্ত, নির্বাচিত প্রতিনিধিদের কারাবন্দি কিংবা সংবিধান লঙ্ঘন করে জাতীয় ঐক্য হবে না।

‘এই জাতি মানুষ দিয়ে গড়ে তোলা হয়েছে, জমির প্লট দিয়ে না।’

কাজেই ক্ষমতার অপব্যবহারে ভারতীয় নিরাপত্তা ক্ষতিগ্রস্ত হবে বলেও তিনি মন্তব্য করেন।

এদিকে পাকিস্তানের পররাষ্ট্রমন্ত্রী শাহ মাহমুদ কুরাইশি বলেছেন, অধিকৃত জম্মু ও কাশ্মীরে গণহত্যা এবং জাতিগত নিধনের হুমকি রয়েছে।

এ বিষয়ে নীরব না থাকতে জাতিসংঘ, ইসলামিক সহযোগিতা সংস্থা ও মানবাধিকার সংস্থাগুলোর প্রতি আহ্বান জানিয়েছে ইসলামাবাদ।

সোমবার কাশ্মীরের সাত দশকের বিশেষ স্বায়ত্তশাসসেনর মর্যাদা কেড়ে নিয়েছে ভারতের ক্ষমতাসীন মোদি সরকার। এছাড়ার রাজ্যটিকে দুটি ভাগে বিভক্ত করে দেয়া হয়েছে। এতে কাশ্মীরি লোকজনকে এখন ভারতের সংবিধানই মেনে চলতে হবে। বহিরাগতরাও রাজ্যটি জমি কিনে বসতি স্থাপন করতে পারবে।

Comments

comments