এবার পিস্তল নিয়ে বিমানবন্দরে ইলিয়াস কাঞ্চন, ১ জন বরখাস্ত

পিস্তল নিয়ে ঢাকার হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে চিত্রনায়ক ইলিয়াস কাঞ্চন প্রথম ধাপের নিরাপত্তা তল্লাশি পার হওয়ার ঘটনায় একজনকে বরখাস্ত করা হয়েছে।

বরখাস্ত হওয়া ব্যক্তির নাম ফজলার রহমান। তিনি ওই ঘটনার সময় সেখানে নিরাপত্তার দায়িত্বে ছিলেন বলে জানিয়েছে বেসামরিক বিমান চলাচল কর্তৃপক্ষ (বেবিচক)। এ ঘটনায় দুঃখ প্রকাশ করে তদন্ত কমিটিও গঠন করেছে তারা।

মঙ্গলবার দুপুরে চট্টগ্রামে যাওয়ার জন্য শাহজালাল বিমানবন্দরের অভ্যন্তরীণ টার্মিনালে আসেন নিরাপদ সড়ক চাই (নিসচা) আন্দোলনের চেয়ারম্যান চিত্রনায়ক ইলিয়াস কাঞ্চন। তখন তার সঙ্গে অস্ত্র ছিল। ফ্লাইটে ওঠার আগে অন্তত দুই দফায় নিরাপত্তা তল্লাশি পার হতে হয়। কিন্তু ইলিয়াস কাঞ্চন তার লাইসেন্স করা ৯ এমএম পিস্তল ও ১০ রাউন্ড গুলি ব্যাগে নিয়েই বিমাবন্দরের প্রথম ধাপের নিরাপত্তা পেরিয়ে যান। স্ক্যানিংয়ে ধরা পড়েনি। পরে দ্বিতীয় ধাপের তল্লাশির সময় তিনি সঙ্গে অস্ত্র থাকার কথা নিরাপত্তা কর্মকর্তাদের জানান। এ ঘটনায় শাহজালাল বিমানবন্দর কর্তৃপক্ষ তার কাছে দুঃখ প্রকাশ করে।

এ ঘটনায় চিত্রনায়ক ইলিয়াস কাঞ্চন থেকে বক্তব্য নেয়া যায়নি।

উল্লেখ্য, গত ২৪ ফেব্রুয়ারির বিমান ছিনতাইচেষ্টা ঘটনার পর শাহজালালসহ দেশের সব কটি বিমানবন্দরের নিরাপত্তাব্যবস্থা আরও জোরদার করা হয়েছে বলে সিভিল এভিয়েশন থেকে জানানো হয়েছিল।

ওই দিন বিকালে ঢাকা থেকে ছেড়ে যাওয়া দুবাইগামী বিজি-১৪৭ ফ্লাইটে খেলনা পিস্তল নিয়ে উঠে বিমান ছিনতাইয়ের চেষ্টা করেন পলাশ আহমেদ নামে এক যুবক।

ভিডিও ফুটেজে দেখা গেছে, সে সময় তার সঙ্গে থাকা খেলনা পিস্তলটি শাহজালাল বিমান বন্দরের স্ক্যানিং মেশিনে ধরা পড়েনি।

বিষয়টি নিয়ে চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন পুলিশের (সিএমপি) কাউন্টার টেররিজম ইউনিটের তদন্তাধীন অবস্থায় মঙ্গলবার (৫ মার্চ) আবার এ ঘটনাটি ঘটল।

এ ঘটনায় চিত্রনায়ক ইলিয়াস কাঞ্চন থেকে বক্তব্য নেয়া যায়নি।

এর আগে বিমান ছিনতাইচেষ্টার ঘটনার তদন্তের স্বার্থে হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরের ৬ নিরাপত্তাকর্মীর বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণ করে কর্তৃপক্ষ।

এদের মধ্যে পাঁচজন কর্মীকে সাময়িক বরখাস্ত এবং একজনকে প্রত্যাহার করে নেওয়া হয়েছে।

গত সোমবার (৪ মার্চ) বেসামরিক বিমান চলাচল কর্তৃপক্ষ এসব তথ্য জানান।

এর আগে গত ২৭ ফেব্রুয়ারি অভ্যন্তরীণ রুটে ফটো আইডি ছাড়া যাত্রীদের বিমানে ওঠায় নিষেধাজ্ঞা দিয়েছে সিভিল এভিয়েশন।

এখন থেকে এই রুটে টিকিট কাটার সময় যাত্রীদের ফটো আইডি প্রদর্শন করতে হবে।

Comments

comments