হাত-পা নাড়ছেন, চোখও মেলছেন ওবায়দুল কাদের

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও সড়ক, পরিবহন এবং সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের হাত-পা নাড়ছেন এবং চোখ খুলতে পারছেন বলে জানিয়েছেন চিকিৎসকরা।

রোববার বিকেলে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় (বিএসএমএমইউ) হাসপাতালে সাংবাদিকদের এসব জানান দুই বিশেষজ্ঞ চিকিৎসক ডা. সৈয়দ আলী আহসান ও কনক কান্তি বড়ুয়া।

তারা বলেন, ওবায়দুল কাদের যখন রাষ্ট্রপতি আবদুল হামিদ এসেছেন তখন চোখ মেলে দেখেছেন। এছাড়া একজন মন্ত্রী আসার পরও তিনি তার ডাকে সাড়া দিয়েছেন।

চিকিসৎরা বলেন, এ অবস্থা ১০ ঘণ্টা চললে তিনি শংকামুক্ত হবেন। বর্তমান অবস্থায় তাকে দেশের বাইরে নেয়ার অবস্থা নেই। সিঙ্গাপুরের মাউন্ট এলিজাবেথ হাসপাতালের তিন চিকিৎসক দেশে আসছেন বলে জানান তারা।
দুই চিকিৎসক হাসপাতালে ভিড় না করতে নেতাকর্মী ও সমর্থকদের আহ্বান জানান। ওবায়দুল কাদেরের বুকে পেসমেকার বসানো হয়েছে।

এর আগে ওবায়দুল কাদেরের হার্টে তিনটি ব্লক ধরা পড়ে বলে চিকিৎসরা জানান। সকাল সাড়ে ৭টার দিকে ওবায়দুল কাদেরকে বিএসএমএমইউ’র ইনটেনসিভ কেয়ার ইউনিটে (আইসিইউ) ভর্তি করা হয়। সেখান থেকে জরুরি ভিত্তিতে তাকে করোনারি কেয়ার ইউনিটে (সিসিইউ) নিয়ে ভর্তি করা হয়।

তাকে দেখতে বিকেল ৪টার দিকে বিএসএমএমইউ যান প্রধানমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনা। তিনি ওবায়দুল কাদেরের চিকিৎসার খোঁজখজবর নেন।

এরপর সাড়ে ৪টার দিকে তাকে দেখতে যান রাষ্ট্রপতি।

মন্ত্রীর জনসংযোগ কর্মকর্তা আবু নাছের জানান, ফজরের নামাজ শেষ হঠাৎ শ্বাস-প্রশ্বাসে সমস্যা হচ্ছিল উনার। সঙ্গে সঙ্গে উনাকে বিএসএমএমইউতে নিয়ে যাওয়া হয়।

Comments

comments