আটক ভারতীয় পাইলটের পরিচয় প্রকাশ করল পাকিস্তান

পাকিস্তানের আকাশ সীমায় প্রবেশ করার পর দুটি ভারতীয় বিমান বিধ্বস্ত করার দাবি করেছে পাকিস্তান এবং সেই সাথে দুই পাইলটকে আটকের কথাও জানিয়েছে তারা। এর মধ্যে এক পাইলটের একটি ভিডিও পরিচয় প্রকাশ করেছে পাকিস্তান সেনাবাহিনী। ভিডিওতে ওই পাইলট নিজের পরিচয় জানিয়েছেন।

পাকিস্তান জানিয়েছে, তাদের হাতে এখন ভারতের দুই পাইলট বন্দী আছেন। তার মধ্যে একজনের একটি ভিডিও প্রকাশ করা হয়েছে। ভিডিওতে দেখা গেছে- চোখ বাঁধা অবস্থায় ভারতীয় বিমান বাহিনীর ইউনিফর্ম পরা এক লোক বলছে, আমার নাম উইং কমান্ডার অভিনন্দন এবং আমার সার্ভিস নম্বর ২৭৯৮১। আমি একজন ফ্লাইং পাইলট, আমার ধর্ম হিন্দু।

তার কাছে আরো বিস্তারিত পরিচয় জানতে চাওয়া হলে তিনি বলেন, ‘আমি দুঃখিত স্যার, আমার এরচেয়ে বেশি বলার অনুমতি নেই’।

ভিডিওতে এরপর ওই উইং কমান্ডারের ইউনিফর্মে লাগানো ব্যাজ দেখানো হয়। ওই ভারতীয় পাইলট আবার বলেন, ‘আমি কি একটি ছোট্ট তথ্য পেতে পারি স্যার?, আমি কি পাকিস্তানি সেনাবাহিনীর কাছে আছি?’

এছাড়া পাকিস্তান সেনাবাহিনী ওই দুই পাইলটের কাছে থাকা কাগজপত্র, ব্যক্তিগত কিছু জিনিস, অফিশিয়াল সরকারি নথি, একটি পিস্তলের ছবি প্রকাশ করেছে।

ভারতীয় সংবাদমাধ্যমও তাদের লাইভ আপডেট বিভাগে পাকিস্তান কর্তৃক গ্রেফতারকৃত পাইলটের ভিডিও প্রকাশের খবর দিয়েছে।

বুধবার ভোররাতে ভারতীয় যুদ্ধবিমান পাকিস্তানের ভূখণ্ডে ঢুকে হামলা চালানোর পর উত্তেজনার সূত্রপাত। পাকিস্তানি বিমান পাল্টা ব্যবস্থা হিসেবে ভারতের আকাশ সীমায় প্রবেশ করে। পাকিস্তান দাবি করেছে তারা ভারতের দুটি যুদ্ধবিমান ভূপাতিত করেছে। এবং দুই পাইলটকে আটক করেছে। অন্যদিকে ভারত বলেছে, তারাও পাকিস্তানের একটি বিমান ভূপাতিত করেছে।

পাকিস্তান বিমান ভূপাতিত করার ছবি, ভিডিও ইত্যাদি প্রকাশ করলেও ভারতের পক্ষ থেকে কিছু প্রকাশ করা হয়নি এখনো। ডন পত্রিকায় দেশটির পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের কর্মকর্তাদের উদ্ধৃতি দিয়ে বলা হয়, এই হামলার একমাত্র উদ্দেশ্য ছিল আমাদের আত্মরক্ষার অধিকার, ইচ্ছা আর সামর্থ্য প্রমাণ করা।
পাকিস্তান আইএসপিআরের ডিজি মেজর জেনারেল আসিফ গফুর হামলার কথা নিশ্চিত করে বলেন, পাকিস্তান বিমানবাহিনী এই হামলা চালিয়েছে।

তিনি বলেন, পাকিস্তান বিমানবাহিনী পাকিস্তানি আকাশসীমার ভেতরে দুটি ভারতীয় বিমান গুলি করে ভূপাতিত করেছে। একটি বিমান আজাদ কাশ্মিরের ভেতরে পরে, অপরটি নিয়ন্ত্রণরেখার ওপারে ভারত-অধিকৃত কাশ্মিরে ভূপাতিত হয়। ভারতীয় বিমানের একজন পাইলটকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

কিছুদিন আগে ভারত অধিকৃত কাশ্মিরে ভারতীয় আধাসামরিক বাহিনীর বহরে আত্মঘাতি হামলার ঘটনা থেকেই দুই দেশের উত্তেজনা শুরু। এই হামলার পেছনে পাকিস্তানের ইন্ধন রয়েছে বলে দাবি ভারতের। পাকিস্তান যদিও তা অস্বীকার করেছে। এরপর কয়েকদিন ধরে উত্তেজনা আর হুমকি পাল্টা হুমকির পরিস্থিতি বিরাজ করছে সীমান্তের দুই পাশে। বুধবার ভারতের পক্ষ থেকে প্রথম পাকিস্তানের আকাশীসীমায় ঢুকে হামলার দাবি করা হয়।

এদিকে ভারতীয় সংবাদ মাধ্যমগুলো জানিয়েছে, আরো হামলার আশঙ্কায় পাকিস্তান সীমান্তবর্তী এলাকার অন্তত ১০টি বিমান বন্দর বন্ধ করে দিয়েছে ভারত। পাকিস্তানেরও কয়েকটি বিমান বন্দরে বিমান উঠানামা বন্ধ রয়েছে।

Comments

comments