যুব মহিলা লীগের হামলায় মহিলা আ.লীগের সভাপতি আহত

কিশোরগঞ্জের পাকুন্দিয়ায় আধিপত্য বিস্থার ও নেতৃত্ব বিরোধের জেরে উপজেলা মহিলা আওয়ামী লীগের নেতৃবৃন্দের ওপর হামলা চালিয়েছে যুব মহিলা লীগের নেতাকর্মীরা। এতে মহিলা আওয়ামী লীগের সভাপতি জান্নাতুল ফেরদৌস পান্নাসহ তিনজন আহত হন।

শুক্রবার বিকালে উপজেলার হোসেন্দী বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের সামনে এ ঘটনা ঘটে।

হামলার শিকার অন্য দুজন হলেন পাকুন্দিয়া মহিলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক খালেদা আক্তার ও সহসম্পাদক দিলরুবা আক্তার।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, হোসেন্দী বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ে হোসেন্দী ইউনিয়ন মহিলা আওয়ামী লীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলনে অংশ নেয়ার জন্য উপজেলা মহিলা আওয়ামী লীগের সভাপতি জান্নাতুল ফেরদৌস পান্নাসহ অন্যান্য নেতৃবৃন্দ সম্মেলনে যাচ্ছিলেন।

কাছাকাছি পৌঁছালে উপজেলা যুব মহিলা লীগের সভাপতি সাথী আক্তার ও সাধারণ সম্পাদক ললিতা বেগমের নেতৃত্বে একদল নারী নেতাকর্মী তাদের ওপর অতর্কিত হামলা চালিয়ে মারধর শুরু করে।

এতে তারা তিনজন গুরুতর আহত হন। তাদেরকে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হলে রাত ৯টার দিকে জান্নাতুল ফেরদৌস পান্নাকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়।

আহত মহিলা আওয়ামী লীগের নেতৃবৃন্দের দাবি, স্থানীয় সাংসদ ও ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যানের মদদে এ হামলার ঘটনা ঘটেছে।

পাকুন্দিয়া থানার ওসি মো. আজহারুল ইসলাম সরকার যুগান্তরকে জানান, ঘটনাটি শুনেছি। তবে এখন পর্যন্ত এ কেউ মামলা করতে অভিযোগ নিয়ে আসেনি।

Comments

comments